সুনামগঞ্জে সহকারী প্রধান শিক্ষকের মুক্তির দাবীতে মানববন্ধন

sunamgongআল-হেলাল, সুনামগঞ্জ : সুনামগঞ্জ সদর উপজেলায় জেলহাজতে আটককৃত শিক্ষকের মুক্তির দাবীতে মানববন্ধন পালিত হয়েছে। মঙ্গলবার সকাল ১১টায় উপজেলার গৌরারং ইউনিয়নের হাজী ইয়াকুব উল্লাহ পাবলিক উচ্চ বিদ্যালয় প্রাঙ্গনে এই মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। ইউপি সদস্য জমির উদ্দিন এর নেতৃত্বে বিদ্যালয়ের শিক্ষক,ছাত্রছাত্রী ও অভিভাবকদের সম্মিলিত উদ্যোগে অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে সহকারী প্রধান শিক্ষক শাহ গোলাম আহমদের উপর দায়েরকৃত মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার ও তার নি:শর্ত মুক্তির দাবী জানানো হয়।

মানববন্ধন চলাকালে বক্তব্য রাখেন শিক্ষক আরব আলী,রেজাউল করিম শামীম,তাজ উদ্দিন, লাল মিয়া, সাবেক ইউপি সদস্য গুল আহমদ, গন্যমান্য ব্যাক্তিবর্গের মধ্যে মাওলানা আব্দুল মালিক,আব্দুল জলিল,নূর হোসেন,সমুজ আলী,সুরুজ আলী, মুজিবুর রহমান,আব্দুল হান্নান,অভিভাবক সদস্য নুরুজ আলী,মজর আলী,তারা মিয়া প্রাক্তন ছাত্র নুরুন্নবী,আলী হোসেন, ইঞ্জিনিয়ার সায়েম,শাহীন মিয়া,রনি দাস,হোসেন আহমদ,সুব্রত দাস,জামান মিয়া,শামীম আহমদ,তাজ মামুদ,জিতেন্দ্র দাস,বর্তমান শিক্ষার্থী জহিরুল হক,সিরাজুল হক,জসীম উদ্দিন,আলমগীর হোসেন,সাজিদুর রহমান,মনিরুজ্জামান মিলন,লিটন মিয়া,ইমাম হোসেন,রাহেলা বেগম,পপি আক্তার,সাজমিন বেগম,শারমিন আক্তার,জামিলা বেগম,হাসানুর রহমান,জুবায়ের আহমদ,তালহা,শংকর দাস,জনিক দাস,টিপু মিয়া,রেজাউল হক,বিপ্লব,তানজিলা আক্তার,তাছলীমা বেগম,লীমা আক্তার,তুহিন মিয়া,রওশন আরা,মোহসিনা বেগম,লাকী আক্তার,তাছকীয়া বেগম ও তোফায়েল মিয়া প্রমুখ।

বক্তারা বলেন, বিদ্যালয়ের এসএসসি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ ছাত্রদেরকে সনদপত্র প্রদান করতে গিয়ে প্রধান শিক্ষক বিল্লাল আহমদ বেলাল অন্যায়ভাবে হয়রানী ও অসদাচরন করার প্রতিবাদে ভিকটিম ছাত্রদের হাতে ঐ শিক্ষক প্রহৃত হন। কিন্তু এ ঘটনার সাথে জড়িত না থাকার পরও প্রধান শিক্ষকের স্ত্রী শিক্ষিকা পিয়ারা বেগম ক্ষমতার অপব্যাবহার করে বাদীনি হয়ে সহকারী প্রধান শিক্ষক শাহ গোলাম আহমদসহ অপ্রাপ্তবয়স্ক ৩ ছাত্রের উপর মামলা দায়ের করেন। তারা নিরীহ শিক্ষক শাহ গোলাম আহমদের উপর দায়েরকৃত মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবী জানান।

news portal website developers eCommerce Website Design