শেখ হাসিনার জন্য শতবর্ষী খইমুনের ভালোবাসা

khoimunওয়ান নিউজ বিডি, লালমনিরহাট : ‘আল্লাহ যেন শেখ হাসিনাকে ক্ষমতায় রাখে আর হাসিনার সরকার যেন কোনো দিন না যায়। এ জন্য শেখের বেটির নামে একশ’ একবার কোরআন খতম দিয়েছি। এই কথাটা ছাওয়াটাক (শেখ হাসিনা) জানবার পর যেন আল্লাহ আমার মৃত্যু দেন। আমার কোনো চাওয়ার নেই, শুধু তাকে এই কথাটা জানিয়ে যেতে চাই।’ এভাবেই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জন্য নিজের ভালোবাসার কথা জানিয়েছেন শতবর্ষী খইমুন বিবি।

এ বৃদ্ধা নীলফামারীর ডিমলা উপজেলার টেপা খড়িবাড়ী ইউনিয়নের পূর্ব খড়িবাড়ী গ্রামে পশ্চিম টাপুরচর এলাকার মৃত আবদুল গফুরের স্ত্রী। তিস্তার গাইডবাঁধ থেকে প্রায় সাত কিলোমিটার দূরে নদীর বাম তীর ঘেঁষে একটি জীর্ণ কুঠিরে তার বাস। বড় ছেলে আবদুল হামিদের কাছে থাকেন খইমুন। দুই ছেলে, তিন মেয়ের মা এই নারী একাত্তরের পর থেকে তিস্তার ভাঙনে পাঁচবার বাড়ি হারিয়েছেন।

শতবর্ষী খইমুন জানান, বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণ শুনে নিজ হাতে দা তুলে নিয়েছিলেন তিনি। প্রতিবাদী এই নারী রণাঙ্গনে যেতে না পারলেও বঙ্গবন্ধুর চেতনা ধারণ করে বেঁচে আছেন আজও। তিনি জানান, ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট বঙ্গবন্ধুর নির্মম হত্যাকাণ্ডের খবর বুকে শেলসম বিঁধে; কিন্তু কিছুই করার ছিল না। তবু বঙ্গবন্ধু ও তার পরিবারের প্রতি অগাধ ভালোবাসা জিইয়ে রাখেন হৃদয়ে। সেই ভালোবাসার বহিঃপ্রকাশ ঘটিয়েছেন বঙ্গবন্ধুকন্যার জন্য একশ’ এক বার কোরআন খতম করার মাধ্যমে। ২০০৮ সালের নির্বাচনে শেখ হাসিনার সরকার ক্ষমতায় এলে তিনি একশ’ এক বার কোরআন খতম করার নিয়ত করেন।

খইমুনের বড় ছেলের স্ত্রী ছালেহা খাতুন জানান, আমার শাশুড়ি একশ’ এক বার কোরআন খতম দিয়েছেন। তিনি প্রতিদিন পাঁচ ওয়াক্ত নামাজ আদায় ও কোরআন তিলাওয়াত করেন। সানিয়াজান ইউনিয়নের বীর মুক্তিযোদ্ধা আমজাদ হোসেন জানান, খইমুন বিবি একজন পরহেজগার নারী ও বঙ্গবন্ধু পরিবারের ভক্ত।

news portal website developers eCommerce Website Design