ঘোড়াশালে গোয়েন্দা পুলিশের উপর মাদক ব্যাবসায়ীদের হামলা

map norshingde

আল-আমিন মিয়া, নরসিংদী : নরসিংদী গোয়েন্দা পুলিশের উপর হামলা চালিয়েছে মাদক ব্যাবসায়ীরা। আহত হয়েছেন বেশ কয়েকজন গোয়েন্দা পুলিশের সদস্য। ওই ঘটনায় মাদক ব্যাবসায়ী যুবলীগ নেতা ও তার সহধমীনি সহ দুই জনের বিরুদ্ধে পলাশ থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। মামলায় ৩১৫ পিস ইয়াবা উদ্ধার দেখালেও পুলিশের উপর হামলার বিষয়টি উল্লেখ করা হয়নি।

একই সাথে হামলার বিষয়টি অস্বীকার করেছেন গোয়েন্দা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সাইদুর রহমান। জানা যায়, মাদক ব্যবসায়ী ও ঘোড়াশাল পৌরসভার যুবলীগের সহ-সভাপতি বাবুল বাইদ্দা।

গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে গোয়েন্দা পুলিশের এস আই আব্দুর সালামের নেতৃত্ব ডিবি পুলিশের একটি দল ঘোড়াশাল সোহাগ সিনেমা হলের পেছনে বাইদ্দা পট্টিতে  (বেধে পল্লী) বাবুল বাইদ্দার বাড়িতে অভিযান চালায়। অভিযান চালিয়ে ৩১৫ পিস ইয়াবা জব্ধ করেন।  ওই সময় যুবলীগ নেতা বাবুল বাইদ্দাকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। ওই বাবুলের সমর্থকরা পুলিশের উপর অতকিৎ হামলা চালায়। এতে বেশ কয়েকজন পুলিশ সদস্য আহত হয়। পরে অতিরিক্ত পুলিশ সদস্যসরা ঘটনা স্থলে উপস্থিত হয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এদিকে হামলার সময় পালিয়ে যায় বাবুল বাইদ্দা। পরে বাবুলের স্ত্রী নাজু বেগমকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। এঘটনায় শুক্রবার ভোর সাড়ে ৫টায় গোয়েন্দা পুলিশের উপ-পরিদর্শক আব্দুর সালাম বাদি হয়ে বাবুল ও তার স্ত্রী সহ দুই জনকে আসামী করে পলাশ থানায় মামলা দায়ের করেন।

স্থানীয় একটি সূত্র জানায়, সব ধরণের অপরাধের স্বর্গ রাজ্য হচ্ছে ঘোড়াশাল বেধে পল্লী। দীর্ঘ দিন ধরে এখানে রমরমা মাদক ব্যবসা ও পতিতা ভিত্তিক ব্যবসা করে আসছে যুবলীগ নামদারী নেতা বাবুল বাইদ্দা।স্থানীয় প্রশাসন ও রাজনৈতিক ব্যক্তিদের ম্যানেজ করে এই ব্যাবসা পরিচালনা করে আসছে।

পুলিশের উপর হামলার বিষয়টি অস্বীকার করেছেন গোয়েন্দা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সাইদুর রহমান। তিনি বলেন,মাদক উদ্ধারের একটি অভিযান ছিল। সেখান থেকে ৩১৫ পিস ইয়াবা সহ এক জনকে গ্রেপ্তার করা হয়।

news portal website developers eCommerce Website Design