নরসিংদীতে বিদ্যুৎস্পৃষ্টে নিহত ৬

dad body

dad bodyনরসিংদী: নরসিংদীর রায়পুরায় একটি ফিলিং স্টেশনে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে নিহত শ্রমিকের সংখ্যা ছয়জনে দাঁড়িয়েছে। বুধবার বিকালে রায়পুরা উপজেলার গকুলনগরের লাল মিয়া ফিলিং স্টেশনে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন- ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার আশুগঞ্জ উপজেলার উবায়দুল্লাহ মিয়ার ছেলে বরকত হোসেন (১৮), একই এলাকার দুদু মিয়ার ছেলে আবুল ফজল (৩০), ভৈরবের কমলপুর গ্রামের টিটু মিয়ার ছেলে আওয়াল মিয়া (২০), একই এলাকার নূরুল ইসলামের ছেলে কাউসার মিয়া (৩০), রায়পুরার রামনগর এলাকার শাজাহান মিয়ার ছেলে জাকারিয়া (২৫) ও হাকিম মিয়া (৫০)।

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, সকাল থেকেই ১০ জন শ্রমিক লাল মিয়া ফিলিং স্টেশনে সাবাতুম মোটর্স নামে একটি গাড়ি সার্ভিসিং প্রতিষ্ঠানের অবকাঠামো নির্মাণের কাজ করছিল। সেখানে ভারী যন্ত্রপাতি ও লম্বা ক্রেন ব্যবহার করা হচ্ছিল।

বিকাল ৪টার দিকে ছয়জন শ্রমিক একটি চার চাকার লোহার উঁচু ট্রলি এক পাশ থেকে অন্য পাশে নিয়ে যাচ্ছিল। এসময় ফিলিং স্টেশনের উপর দিয়ে যাওয়া পল্লী বিদ্যুতের সঞ্চালন লাইনে ট্রলির স্পর্শ লেগে যায়।

এতে মুহূর্তেই বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে পাঁচ শ্রমিক ঘটনাস্থলে মারা যান। এ সময় গুরুতর আহত আবুল ফজলকে ভৈরবের একটি প্রাইভেট ক্লিনিকে নিয়ে যাওয়া হলে সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

খবর পেয়ে রায়পুরা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ আবদুল্লাহ ও রায়পুরা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দেলোয়ার হোসেন ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

রায়পুরা থানার ওসি দেলোয়ার হোসেন বলেন, ‘মূলত অসতর্কতার কারণেই এই মর্মান্তিক মৃত্যু হয়েছে। অবহেলা ও অসতর্কতার অভিযোগে আমরা ফিলিং স্টেশনের গাড়ি সার্ভিসিং সেন্টার সাবাতুম মোটর্সের মালিক ইব্রাহীম মিয়ার বিরুদ্ধে মামলার প্রস্তুতি নিচ্ছি।’

নিহতদের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্যে নরসিংদী সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে বলে জানান তিনি।

news portal website developers eCommerce Website Design
Close ads[X]