ছুটি শেষ হতেই বাকৃবিতে কর্মকর্তা-কর্মচারীদের আন্দোলন

BAU bkb

জাহিদ হাসান, বাকৃবি: বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে (বাকৃবি) ঈদুল আযহার ছুটি শেষ হতে না হতেই ৯ দফা দাবীতে পৃথক পৃথক অবস্থান কর্মসূচি পালন করেছে বাকৃবি কর্মচারী ঐক্য পরিষদ ও অফিসার পরিষদ।

রবিবার সকাল ১০ টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসন ভবনের সামনে কৃষি অনুষদের করিডোরে এ অবস্থান কর্মসূচি পালন করে তারা।

জানা যায়, গত ২১ আগস্ট থেকে জাতীয় বেতন স্কেল ২০১৫ বাস্তবায়ন ও পদোন্নয়নের দাবি আদায়ের লক্ষ্যে প্রায় নিয়মিত আন্দোলন করে আসছে বিশ্ববিদ্যালয়ের অফিসার পরিষদ।

অন্যদিকে কর্মচারী ঐক্য পরিষদও বিভিন্ন দাবি নিয়ে আন্দোলনে নামে। কর্মচারী ঐক্য পরিষদের দাবিগুলোর মধ্যে এডহক ও পদের বিপরীতে নিয়োজিত এম.আর কর্মচারীদের চাকুরী স্থায়ীকরণ, পদ বিহীন এম.আর কর্মচারীদের দ্রুত পদ প্রদর্শন কমিটির মাধ্যমে শূন্য পদের বিপরীতে প্রদর্শনের যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ, কারিগরি কর্মচারীদের কারিগরি নীতিমালা সংশোধনসহ বাস্তবায়ন সহ মোট ৯টি দাবিতে তারা ওই অবস্থান কর্মসূচি গ্রহণ করেন।

দুই পক্ষ থেকে একই সময়ে দুটি মাইকে ভিন্ন ভিন্ন বক্তব্য রাখেন তাঁরা। এতে উচ্চ শব্দের কারণে ক্লাসে মনোযোগ দিতে পারেন নি শিক্ষার্থীরা। অন্যদিকে ক্লাস-পরীক্ষা চলাকালীন সময়ে মাইকিং করার কারণেও সমস্যা হয়েছে বলে জানান শিক্ষার্থীরা।

এ বিষয়ে কর্মচারী পরিষদের আহবায়ক মো. নজরুল ইসলাম বলেন, কর্মচারীদের দাবি বাস্তবায়নে সন্তোষজনক কোন জবাব আমরা প্রশাসনের কাছ থেকে পাইনি। দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত আমাদের আন্দোলন চলবে।
অফিসার পরিষদের সভাপতি আরীফ জাহাঙ্গীর বলেন, আমাদের নায্য দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত আমরা আন্দোলন করে যাবো। দ্রুতসময়ে দাবি আদায় না হলে, সামনে আরও কঠোর আন্দোলনে যাওয়ারও হুশিয়ারি দেন তিনি।

এ বিষয়ে উপাচার্য অধ্যাপক মো. আলী আকবর বলেন,কর্মকর্তা-কর্মচারীদের দাবির বিষয়ে দুইটি কমিটি করে দেওয়া হয়েছে। কমিটির প্রতিবেদন পাওয়ার পর তাদের সুপারিশ অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হবে। আন্দোলনের নামে ক্লাসে বিঘ্ন ঘটানোর অধিকার কারো নেই।

news portal website developers eCommerce Website Design