জামালপুরে স্কুলছাত্রী ধর্ষণ, থানায় মামলা

jamalpur map

ওসমান হারুনী, জামালপুর: জামালপুরের মেলান্দহ উপজেলায় এক স্কুলছাত্রী ধর্ষণের শিকার হয়েছে। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় এ ঘটনা ঘটে। এ ব্যাপারে বুধবার দুপুরে মেলান্দহ থানায় একটি মামলা দায়ের হয়েছে।

জানা গেছে, মেলান্দহ উপজেলার চরবানীপাকুরিয়া ইউনিয়নের শিহুরী গ্রামের সাইকেল গেরেজের মিস্ত্রি কালাম ওরফে কালা (৪২) মঙ্গলবার সন্ধ্যার দিকে পাশের শিহাটা গ্রামের এক দরিদ্র পরিবারের ১২ বছরের কন্যাশিশুকে ফুসলিয়ে তার বাড়িতে নিয়ে যায়। শিশুটি স্থানীয় একটি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রী। কালাম শিশুটিকে তার ঘরে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। এ সময় শিশুটির চিৎকার শুনে প্রতিবেশীরা ছুটে গেলে অবস্থা বেগতিক দেখে কালাম শিশুটিকে তার ঘরে রেখেই দ্রুত পালিয়ে যায়। খবর পেয়ে শিশুটির বাবা-মা ও অন্যান্য স্বজনেরা কালামের বাড়ি থেকে শিশুটিকে উদ্ধার করে। শিশুটি তাকে নির্যাতনের ঘটনা খুলে বললে তাৎক্ষণিক বিষয়টি মেলান্দহ থানা পুলিশকে জানানো হয়। পরে রাতে মেলান্দহ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আজিজুর রহমান পুলিশ ফোর্স নিয়ে কালামের বাড়িতে হানা দেন। কিন্তু পুলিশ তার কোনো সন্ধ্যান পায়নি।
থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আজিজুর রহমান শিশুটিকে উদ্ধার করে রাতেই মেলান্দহ থানায় নিয়ে যান। গ্রামবাসীরা জানিয়েছে, ঘটনার পর থেকেই কালাম পালিয়েছে।

এ ঘটনায় শিশুটির সহোদর বড় ভাই বাদী হয়ে বুধবার পলাতক কালাম ওরফে কালার বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনের ৯(১) ধারায় ধর্ষণের অভিযোগ এনে মেলান্দহ থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন। পুলিশ ধর্ষণের শিকার শিশুটিকে বুধবার জামালপুর জেনারেল হাসপাতালে ডাক্তারি পরীক্ষা সম্পন্ন করেছে।

news portal website developers eCommerce Website Design
Close ads[X]