বাল্যবিবাহ এর বিরুদ্ধে প্রতিবাদ গড়ে তুলল “বিএসডিও”

প্রত্যয় বিশ্বাস: দারিদ্রতা আর অর্থের অভাবে পড়াশুনা থেকে ঝড়ে যাচ্ছে অনেক হাজার হাজার কিশোর-কিশোরী। তার ব্যতিক্রম নয় কালারহাট মাধ্যমিক বিদ্যালয় এর ৬ষ্ঠ শ্রেনীর ছাত্রী কবিতা। সে যশোরের মনিরামপুর উপজেলার কাশিমনগর ইউনিয়ানের গয়েশপুর গ্রামে নানার বাড়িতে মামার আশ্রায়ে বসবাস করে। তার স্কুলে সেশন ফি ৪৮০ টাকা বকেয়া থাকার কারণে প্রায় স্কুল যাওয়া বন্দ হয়ে যাওয়ার উপক্রম।

পরবর্তীতে বাংলাদেশ সমাজ উন্নয়ন সংস্থা (B.S.D.O) কাছে খবর পোঁছায় টাকার অভাবে ঝরে পড়তে চলছে কবিতার জীবন।এ খবর শুনে ঢাকা থেকে ছুটে সংস্থার সাধারণ সম্পাদক আবু নাহিয়ান ও প্রচার সম্পদক হাবিবুর রহমান কবিতার সাথে দেখা করে ।কবিতার মা জানান তার পরিবারের অভাব -অনাটন থাকায় পড়াশুনার খরচ ব্যয় বহন করতে পারছে না। তাই তাকে বিবাহ দিয়ে দিবে। এতে ঘোর আপত্তি জানান B.S.D.O এর সাধারণ সম্পাদক তিনি কবিতাকে ভবিষ্যাৎ এ যেন এ সমস্যা না হয় এ বিষয়ে তিনি প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করেন।

এবিষয়ে আবু নাহিয়ান জানান:- বাংলাদেশ সমাজ উন্নয়ন সংস্থা সকল অসহায় দারিদ্র মানুষের জন্য কাজ করে আসছে ভবিষ্যাৎ এ কাজ করে যাবে। এছাড়াও তিনি জানান, সবাই যদি আমাদের কে সহযোগীতা করে তাহলে আমরা কবিতার মত হাজার হাজার শিক্ষার্থীর পাশে দাড়াডে পারবো। এবিষয়ে জানতে চাইলে সাংগঠনিক সম্পাদক প্রত্যয় বিশ্বাস বলেন, আমার সকল স্কুলের প্রধান শিক্ষক এর কাছে একটাই অনুরোধ থাকবে কোন শিক্ষার্থী যেন টাকার অভাবে ঝড়ে না পরে। শিক্ষকরা জাতি গঠনে কারিগর, তাই শিক্ষকে এ বিষয়ে আরো তৎপর হওয়ার জন্য অনুরোধ করেন। এছাড়া সবাইকে নিজ নিজ অবস্থান থেকে অসহায় মানুষের পাশে দাড়ানোর আহবান জানায়