ইন্টারনেটে ভ্যাট না কমালে ব্যবস্থা

abul mal abdul muhitডেস্ক রিপোর্ট: চলতি ২০১৮-১৯ অর্থবছরের বাজেটে ইন্টারনেট ব্যবহারের ওপর ধার্যকৃত ভ্যাট (মূল্য সংযোজন কর) কমানো হয়েছে। এটি ১৫ শতাংশ থেকে কমিয়ে পাঁচ শতাংশ করা হয়েছে। ফলে ১ জুলাই থেকে গ্রাহক পর্যায়ে ইন্টারনেট খরচ কমার কথা। কিন্ত কোনো অপারেটর এটি বাস্তবায়ন করেনি।

অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেন, অপারেটরা এটি বাস্তবায়ন না করলে ব্যবস্থা নেয়া হবে। বুধবার অর্থমন্ত্রণালয়ে তিনি এ কথা বলেন।

চলতি বাজেটে ইন্টারনেট ব্যবহারের ওপর ধার্যকৃত ভ্যাট কমানো হয়েছে। এটি ১০ শতাংশ কমানোর ফলে ১০০ টাকায় যে ১৫ টাকা ভ্যাট দিতে হতো গ্রাহককে, চলতি মাস থেকে তা পাঁচ টাকা দিতে হবে। কিন্ত মোবাইল অপারেটরসহ ইন্টারনেট সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠানগুলো এখনো তা বাস্তবায়ন করেনি। এ ব্যাপারে অর্থমন্ত্রী বলেন, বাস্তবায়ন না করলে তাদের (মোবাইল অপারেটর ও ইন্টারনেট সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠান) বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নেয়া হবে। সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষই তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিবে।

প্রসঙ্গত, ইন্টারনেট থেকে ভ্যাট, শুল্ক ও সারচার্জ বাবদ গ্রাহকের খরচ হয় ২১ দশমিক ৭৫ শতাংশ অর্থ। এর মধ্যে ভ্যাট ১৫ শতাংশ। এসব থেকে সরকারের বছরে আয় হয় এক হাজার ১০০ কোটি টাকা। ২০১৮-১৯ অথর্বছরের বাজেটে এটি কমিয়ে পাঁচ শতাংশ করা হয়েছে।

news portal website developers eCommerce Website Design