ওসমানী মেডিকেলে নানির চিকিৎসকের হাতে ধর্ষণের অভিযোগ নাতনির

সিলেট : সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নানিকে চিকিৎসা করাতে এসে এক কিশোরী ধর্ষণের শিকার হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

ওই কিশোরীকে হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে (ওসিসি) ভর্তি করা হয়েছে। রোববার রাতে হাসপাতালের তৃতীয়তলায় ওই চিকিৎসকের রুমে এ ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনায় অভিযুক্ত ওই চিকিৎসককে আটক করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন কোতোয়ালি থানার ওসি মোশাররফ হোসেন।

অভিযুক্ত ওই চিকিৎসকের নাম মাকামে মাহমুদ (২৫)। তার গ্রামের বাড়ি ময়মনসিংহের মুক্তাগাছায়। বাবার নাম মোখলেসুর রহমান।

এমবিবিএস ৫১ ব্যাচের শিক্ষার্থী মাহমুদ হাসপাতালের নাক-কান-গলা বিভাগের ইন্টার্ন চিকিৎসক বলে জানা গেছে।

হাসপাতাল পুলিশ ক্যাম্পের ইনচার্জ এসআই ফারুক আহমদ যুগান্তরকে জানান, গতকাল রোববার রাতে নগরীর বনকলাপাড়া থেকে ওই কিশোরী তার নানিকে হাসপাতালে নিয়ে আসেন। ওষুধ লিখে আনতে ওই চিকিৎসকের রুমে যায় মেয়েটি। এ সময় দরজা আটকে তাকে ধর্ষণ করেন ওই ডাক্তার।

এ ব্যাপারে ওসি মোশাররফ হোসেন যুগান্তরকে বলেন, হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ ওই চিকিৎসককে আমাদের হাতে তুলে দিয়েছে। এ অভিযোগের ভিত্তিতে তার বিরুদ্ধে এখন ব্যবস্থা নেয়া হবে।

news portal website developers eCommerce Website Design