আহত আ.লীগ কর্মীদের দেখতে চক্ষুবিজ্ঞান ইনস্টিটিউটে প্রধানমন্ত্রী

hasina

নিরাপদ সড়কের দাবিতে শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের সময় আওয়ামী লীগ অফিসে দুর্বৃত্তদের হামলায় আহত কর্মীদের দেখতে জাতীয় চক্ষুবিজ্ঞান ইনস্টিটিউট ও হাসপাতালে গিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। হাসপাতালে দুর্বৃত্তদের হামলায় এক চোখ নষ্ট হয়ে যাওয়া স্বেচ্ছাসেবক লীগের নেতা আরাফাতুল ইসলাম বাপ্পিসহ চারজনের চিকিৎসার সার্বিক খোঁজ-খবর নেন তিনি। উন্নত চিকিৎসার জন্য প্রয়োজনে বিদেশ পাঠানোরও নির্দেশ দেন প্রধানমন্ত্রী।

মঙ্গলবার (৭ আগস্ট) সন্ধ্যা ৬টায় শের-এ-বাংলা নগর জাতীয় চক্ষুবিজ্ঞান ইনস্টিটিউট ও হাসপাতালে যান তিনি।

গত শনিবার (৪ আগস্ট) চার শিক্ষার্থীকে হত্যা ও কয়েকজন ছাত্রীকে আটকে রেখে পাশবিক নির্যাতনের ‘গুজব’কে কেন্দ্র করে রাজধানীর ধানমন্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতির কার্যালয়ে হামলা হয়।
চক্ষুবিজ্ঞান ইনস্টিটিউটে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে ছিলেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের, সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডা. রুহুল হক, ডা. হাবিবে মিল্লাত ও দলের সাংগঠনিক সম্পাদক এনামুল হক শামীম।

এর আগে মঙ্গলবার বিকালে সংবাদ সম্মেলনে ওবায়দুল কাদের জানান, উন্নত চিকিৎসার জন্য আহত আরাফাতুল ইসলামকে তারা ভারতের চেন্নাইয়ে পাঠাবেন।

গত শনিবার (৪ আগস্ট) নিরাপদ সড়কের দাবিতে শিক্ষার্থীদের আন্দোলনে উত্তাল ছিল পুরো ঢাকা। ওই দিন দুপুর আড়াইটার দিকে আওয়ামী লীগ অফিসে হামলার ঘটনা ঘটে বলে প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান। এ সময় পুলিশ ও আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের সঙ্গে শিক্ষার্থীদের ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। এতে দুই পক্ষের বেশ কয়েকজন আহত হন।

news portal website developers eCommerce Website Design