সিলেটে স্থগিত দুই কেন্দ্রে পুনঃভোট চলছে

chalet

মেয়র পদের ফল নির্ধারণের জন্য সিলেট সিটি করপোরেশন নির্বাচনে স্থগিত দুই কেন্দ্রে পুনরায় ভোটগ্রহণ চলছে।

শনিবার সকাল ৮টায় গাজী বুরহান উদ্দিন গরম দেওয়ান সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও হবিনন্দী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে ভোট গ্রহণ শুরু হয়। একটানা চলবে বিকাল ৪টা পর‌্যন্ত।

ভোট শুরু হওয়ার আধঘণ্টা পর থেকে বৃষ্টি শুরু হয়েছে। এ কারণে ভোটারের উপস্থিতি কিছুটা কম।

এ দুই কেন্দ্র ছাড়াও ভোটের ফলাফল সমান হয়ে যাওয়ায় সংরক্ষিত ৭ নম্বর (১৯, ২০ ও ২১) ওয়ার্ডের ১৪টি কেন্দ্রে সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর পদেও পুনঃভোট হচ্ছে।

এ নির্বাচনের রিটানিং কর্মকর্তা মো. আলীমুজ্জামান বলেন, ভোট সুষ্ঠু করতে নিরাপত্তা জোরদার করার পাশাপাশি সব ধরনের প্রস্তুতিই তারা নিয়েছেন।

তিনি বলেন, ভোটারদের নিরাপত্তায় পুলিশ, র‌্যাব ও আনসার সদস্যরা মাঠে থাকবেন; পাশাপাশি দুই প্লাটুন (প্রতি প্লাটুনে ২০ থেকে ২৫ জন সদস্য) বিজিবি মোতায়েন করা হবে। এছাড়া নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের নেতৃত্বে ভ্রাম্যমাণ আদালত থাকবে ভোটের মাঠে।

chalet

 

 

 

 

 

 

 

 

এছাড়া ৭ নম্বর ওয়ার্ডের ১৪টি কেন্দ্রে আরও তিন প্লাটুন বিজিবি মোতায়েন থাকবে বলে তিনি জানান।

গত ৩০ জুলাই সিলেট সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে কেন্দ্র দখল ও ব্যালটবাক্স ছিনতাইয়ের ঘটনায় এ দুই কেন্দ্রের ভোট স্থগিত করে নির্বাচন কমিশন।

১৩৪ কেন্দ্রের মধ্যে ১৩২ কেন্দ্রের ফলাফল হাতে পাওয়ার পর দেখা যায়, বিএনপির প্রার্থী আরিফুল হক চৌধুরী তার প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগ প্রার্থী বদর উদ্দিন আহমদ কামরানের চেয়ে ৪ হাজার ৬২৬ ভোটে এগিয়ে আছেন।

গাজী বুরহান উদ্দিন গরম দেওয়ান সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে ভোটার ২ হাজার ২২১ জন; আর হবিনন্দি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রের ভোটার ২ হাজার ৫৬৬ জন। সব মিলিয়ে এই দুই কেন্দ্রে ভোটের চার হাজার ৭৮৭ জন।

১৩২টির ঘোষিত ফলাফল অনুযায়ী আরিফুল ধানের শীষ প্রতীকে পেয়েছেন ৯০ হাজার ৪৯৬ ভোট। আর বদরউদ্দিন নৌকা প্রতীকে পেয়েছেন ৮৫ হাজার ৮৭০ ভোট।
কিন্তু দুই প্রার্থীর ভোটের ব্যবধান স্থগিত কেন্দ্রের ভোটের চেয়ে কম হওয়ায় ওই দুই কেন্দ্রে পুনঃভোটের এই আয়োজন করতে হচ্ছে।

news portal website developers eCommerce Website Design