চুয়াডাঙ্গায় চরমপন্থী নেতার গুলিবিদ্ধ লাশ উদ্ধার পরিবারের দাবী পুলিশ পরিচয়ে তুলে নিয়ে যায় শুক্রবার

Chuadanga

চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদা উপজেলরা ছালাভরা মাঠ থেকে চরমপন্থি দলের সক্রিয় সদস্য একাধিক হত্যা মামলার আসামী বারী হকের (৩৮) গুলিবিদ্ধ মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। শনিবার (২৫ আগস্ট) সকাল ১০ টার দিকে তার মরদেহ উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠায় দামুড়হুদা মডেল থানা পুলিশ। নিহত বারী হক একই উপজেলার করিমপুর গ্রামের বাচু হক ওরফে মোস পচার ছেলে।

স্থানীয়রা জানায়, শনিবার সকালে একদল কৃষক মাঠে কাজ করতে যাওয়ার সময় হোগলডাঙ্গা গ্রামের ছালাভরা মাঠে একটি গুলিবিদ্ধ মরদেহ পড়ে থাকতে দেখে পুলিশকে খবর দেয়। খবর পেয়ে দামুড়হুদা মডেল থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে মরদেহটি উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠায়।

নিহতের পরিবারের লোকজনের অভিযোগ, গতকাল (২৪ আগষ্ট) শুক্রবার বেলা ১২ টার দিকে সাদা পোষাকে একদল পুলিশ পরিচয় দিয়ে তাকে বাড়ীর পাশ্ববর্তী মাঠ থেকে তুলে নিয়ে যায়। এরই মধ্যে শনিবার সকালে তার গুলিবিদ্ধ মরদেহ হোগলডাঙ্গা গ্রামের ছালাভরা মাঠে পড়ে আছে বলে জানতে পায়।

দামুড়হুদা মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সুকুমার বিশ্বাস জানান, আজ সকাল আটটার দিকে এলাকাবাসীর কাছ থেকে খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে মরদেহ উদ্ধার করে সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়।

ওসি আরও জানান, প্রাথমিকভাবে ধারনা করা হচ্ছে দুই দল সন্ত্রাসীর মধ্যে গুলি বিনিময়ে চরমপন্থি দলের সদস্য বারী হক নিহত হয়েছে। তার বিরুদ্ধে দামুড়হুদা থানা ৫ টাসহ বিভিন্ন থানায় হত্যা, চাঁদাবাজি, ডাকাতি, অস্ত্র আইনে এক ডজনের উপরে মামলা রয়েছে।

news portal website developers eCommerce Website Design