কালীগঞ্জে উদ্ধার হওয়া লাশটি যশোরের মফিজুরের

las dade body
প্রতীকী ছবি

ঝিনাইদহের কালীগঞ্জে উদ্ধার অজ্ঞাত লাশটি যশোরের মফিজুরের। নিহত মফিজ যশোর সদর উপজেলার চাঁচড়া ইউনিয়নের সাড়াপোল গ্রামের মৃত লিয়াকত আলী গাজীর পুত্র। তিনি স্যানিটারি ও আড়তের ব্যবসা করতেন। তিনি বিএনপির সমার্থক ছিলেন। সোমবার দিবাগত রাতে তাকে সাড়াপোল নিজ বাড়ি থেকে সাদাপোষাকে পুলিশ পরিচয়ে আটক করে নিয়ে যায় বলে পরিবারের দাবি। মঙ্গলবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে উপজেলার ফুলবাড়ী রাস্তার পাশ থেকে অজ্ঞাত এক ব্যক্তির মৃতদেহ উদ্ধার করেছে কালীগঞ্জ থানা পুলিশ। যার বয়স আনুমানিক ৪৫ বছর। লাশ পাওয়া গেছে শুনে নিহতের স্ত্রী কালীগঞ্জে যেয়ে লাশটি তার স্বামীর এ বিষয়ে নিশ্চিত হয়।

নিহতের ছেলে রাসেল জানান, দেখে মনে হচ্ছে মুখের মধ্যে গুলি করা হয়েছে। ফলে মাথার পেছন থেকে হাড় ভেঙে বেরিয়ে গেছে। পরনের লুঙি ও গেঞ্জি দেখে লাশটি মফিজুরের সনাক্ত করেন নিহতের স্ত্রী। ঝিনাইদহ সদর হাসপাতালে পোস্টমর্টেম শেষে তাকে নিজ গ্রামের মসজিদে গতকালই তার নামাজে জানাযা সম্পন্ন হয়েছে মর্মে নিশ্চিত করে নিহতের পুত্র রাসেল।

চাঁচড়া ইউনিয়ন বিএনপির সভাপতি মোজহার আলী নল্লা বলেন, মফিজ বিএনপির সামর্থক ছিলেন। বারোবাজার পুলিশ ক্যাম্পের আইসি এসআই শিহাব উদ্দীন সাংবাদিকদের জানান, এলাকাবাসী সকালে ফুলবাড়ী রাস্তার পাশে অজ্ঞাত এক ব্যক্তির মৃতদেহ পড়ে থাকতে দেখে পুলিশকে খবর দেয়। পরে পুলিশ গিয়ে লাশটি উদ্ধার করে।

কালীগঞ্জ থানার ওসি মিজানুর রহমান খান সংবাদিকদের জানান, নিহত ব্যক্তির পরনে লুঙি আছে। রাতে রাস্তা পার হওয়ার সময় তিনি সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হতে পারেন। লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ঝিনাইদহ মর্গে পাঠানো হয়।

news portal website developers eCommerce Website Design
Close ads[X]