আইনজীবীদের পাল্টাপাল্টি সংবাদ সম্মেলন

joinul abadin

বিএনপির আইনজীবীদের নিয়ে করা আইনমন্ত্রী আনিসুল হকের বক্তব্যকে ঘিরে মঙ্গলবার বেশ ফুঁসে ছিলেন জাতীয়তাবাদী ঘরানার আইনজীবীরা।

‘খালেদা জিয়ার আইনজীবীরা আইন জানেন না’ আইনমন্ত্রীর এমন বক্তব্যটা একদমই মেনে নিতে পারেন নি তারা।

বক্তব্য প্রত্যাহারের আহ্বান জানিয়ে সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির শহীদ সফিউর রহমান মিলনায়তনে মঙ্গলবার সংবাদ সম্মেলনও করেন তারা।

এতে বক্তব্য রাখেন সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির সভাপতি ও বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান জয়নুল আবেদীন এবং সমিতির সম্পাদক ও দলের যুগ্ম মহাসচিব মাহবুব উদ্দিন।

তবে এদিন বসে ছিলেন না আওয়ামী লীগ শিবিরের আইনজীবীরাও।

বিএনপিপন্থীদের সংবাদ সম্মেলনের পরপরই একই মিলনায়তনে পাল্টা সংবাদ সম্মেলন করেন আওয়ামী লীগপন্থীরা।

বিএনপির আইনজীবীরা ক্ষুব্ধ

বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার বিচারে কারাগারে গঠিত বিশেষ আদালত বিচার বিভাগের অনুমতি না নিয়ে গঠন করা হয়েছে বলে মনে করেন খালেদা জিয়ার আইনজীবীরা।

তাই এই আদালত গঠন আইনসম্মত হয়নি দাবি করে বিষয়টি প্রধান বিচারপতির নজরে দেন তারা।

খালেদা জিয়ার আইনজীবীদের এই যুক্তির পরিপ্রেক্ষিতে আইনমন্ত্রী আনিসুল হক সোমবার সাংবাদিকদের বলেন, ‘আমি মনে করি উনারা যদি এরকম কথা বলে থাকেন তাহলে উনারা আইন জানেন না।’

সেই বক্তব্যের প্রতিক্রিয়ায় আজ সংবাদ সম্মেলনে বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান জয়নুল আবেদীন বলেন, ‘আইনমন্ত্রী একজন দায়িত্বশীল ব্যক্তি, কাজেই তার কাছ থেকে দেশের মানুষ তথা আইনজীবীরা এ ধরণের বক্তব্য আশা করে না।’

সম্মেলনে খালেদা জিয়ার আইনজীবীরা বলেন, আমরা মনে করি আইনমন্ত্রীর এ ধরণের বক্তব্য বাংলাদেশের আইনজীবীদের জন্য অপমানজনক। আমাদের সঙ্গে ওইদিন সিনিয়র আইনজীবী ব্যারিস্টার জমির উদ্দিন সরকার, খন্দকার মাহবুব হোসেন, এ জে মোহাম্মদ আলীর মতো দেশবরেণ্য আইনজীবীরা ছিলেন। তারা প্রত্যেকেই এই বারের প্রতিষ্ঠিত আইনজীবী।

কিন্তু অত্যন্ত দুঃখের বিষয় ‘খালেদার আইনজীবীরা আইন জানেন না’ আইনমন্ত্রীর এমন মন্তব্য অত্যন্ত দুঃখজনক এবং বেদনাদায়ক।

তারা বলেন, আমরা আইনমন্ত্রীকে দেশে আইনের শাসন এবং দেশবরেণ্য আইনজীবীদের প্রতি এ ধরণের অসৌজন্যমূলক বক্তব্য প্রত্যাহারের আহ্বান জানাচ্ছি।

এ ধরণের বক্তব্য প্রত্যাহার করে আইন এবং আইনজীবীদের প্রতি শ্রদ্ধাশীল হবেন বলে আশা করি।

পাল্টা বক্তব্য আ’লীগ পন্থীদের

এর পরপরই পাল্টা সংবাদ সম্মেলন করেন আওয়ামী লীগপন্থী আইনজীবীরা।

এতে বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগ নেতা ও বার কাউন্সিলের ভাইস চেয়ারম্যান ইউসুফ হোসেন হুমায়ুন এবং দলের আইনবিষয়ক সম্পাদক শ ম রেজাউল করিম।

আওয়ামী লীগপন্থী আইনজীবীরা সম্মেলনে বলেন, আদালত কোথায় বসবে, কোন ভবনে বসবে, আদালত কক্ষে কতটি চেয়ার – টেবিল ইত্যাদি থাকবে তা নির্বাহী বিভাগই নির্ধারণ করবে। বিচার বিভাগ নয়।

এসব বিষয় বিচার বিভাগ ঠিক করবে বলে আইনের কোথায় লেখা আছে?- প্রশ্ন রাখেন তারা। এসময় তারা অতীতে বিমানবন্দরেও আদালত বসেছিল বলে নজির তুলে ধরেন।

news portal website developers eCommerce Website Design