বৃষ্টি যখন দৃষ্টি মেলে : মালেক মাহমুদ

বৃষ্টি যখন দৃষ্টি মেলে এই শহরের বুকে
মনের গরম যায় লাফিয়ে হাসি মনের সুখে।
এসির বাতাস বন্ধ করে বৃষ্টিবাতাস গিলি
ছাদের ওপর অামরা দুজন দাঁড়াই নিরিবিলি।

কলস ভাঙা বৃষ্টি পড়ে রাস্তা ছোট খাল
ময়লাপানি ভেসে ওঠে মন করে বেতাল।
মুশলধারে পড়ছে বৃষ্টি পড়ছে নাতো ধীরে
সন্ধ্যে হতে দাঁড়ায় পথিক কেমনে যাবে ফিরে?

 

পথিক তখন ঠাঁয় দাঁড়িয়ে ভাবে কত কিছু
শান্তিনগর রাস্তা তখন যায় হয়ে যায় নিচু।
বৃষ্টিজলে মাঠ ভরে যায় ডুবে শহর রোড
অামায় নিতে অায়রে উড়ে উড়ন্ত এক বোট।

বৃষ্টিপানি গিলে খাবি অামায় নিবি নীড়ে
অামার শহর সোনায়মোড়া ঝিলমিলে এক হীরে।
বৃষ্টিপানি গড়িয়ে যাবে চলবে মটর গাড়ি
তোর অপেক্ষায় থাকবো নাকো যাবো তাড়াতাড়ি।

এমন ভাবনা ভাবতে ভাবতে বৃষ্টি গেলো থেমে
বৃষ্টিপানি ড্রেন-গলিতে যেতে থাকে নেমে।
যানবাহনের অভাব বাড়ে পথিক হেঁটে যায়
ছাদবারান্দায় অামরা দুজন স্বপ্নের এই ঢাকায়।